ইন্দোনেশিয়ার এক গৃহকর্মিকে মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করে সৌদি সরকার!!

ইন্দোনেশিয়ার অভ্যন্তরীণ কর্মীকে পরিবার বা কনস্যুলার কর্মীদের অবহিত না করেই ইন্দোনেশিয়ার গৃহকর্মীকে মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করার পর জাকার্তা সৌদি আরবের সঙ্গে একটি সরকারী প্রতিবাদ দায়ের করেছে ইন্দোনেশিয়া।

ইন্দোনেশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র তিউতি তুরসিলাওয়াতিকে সোমবার মৃত্যুদন্ড কার্যকর করা হয় বলে জানান তিনি।
ইন্দোনেশিয়ার গৃহকর্মির বিরুদ্ধে তার কফিলকে হত্যা করার অভিযোগ ছিল, কিন্তু ইন্দোনেশিয়ার দুতাবাসের দাবি ছিল যৌন নির্যাতনের বিরুদ্ধে আত্মরক্ষা জন্য তার কফিল কে হত্যা করে বলে যানায়।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ইন্দোনেশিয়ার নাগরিক সুরক্ষা বিভাগের পরিচালক লালু মুহাম্মদ ইকবাল মঙ্গলবার সাংবাদিকদের বলেন, এই পদক্ষেপটি “দুঃখজনক” ছিল। এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, “তিউতি তুরসিলাওয়াতির মৃত্যুদণ্ড আমাদের রিয়াদ বা জেদ্দার মধ্যে কোনও বিজ্ঞপ্তি ছাড়াই করা হয়েছিল।

“আমরা সৌদি আরবের পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে ডেকেছি এবং আমাদের প্রতিবাদ জানিয়েছি,” তার মন্ত্রিপরিষদ সচিবের অফিসে জনাব উইদোডো বলেছিলেন, তিনি ধর্ষণের চেষ্টা করার পর ২011 সালে তার কফিলকে হত্যা করার সময় আত্মরক্ষায় অভিনয় করছেন বলে দাবি করেন তিনি।

সুত্রঃ আরব টাইমস অনলাইন পত্রিকা

Related News

Add Comment