কুয়েতে আবারো ১/২ লাখ টাকার ভিসা ৬/৭ লাখ টাকায় বিক্রি, দেখার কেও নেই !!

কুয়েতে আবারও ১/২ লাখ টাকার ভিসা ৬/৭ লাখ টাকায় বিক্রি দালালদের খপ্পরে পড়ে গুনতে হচ্ছে।

অত্যন্ত দুঃখের বিষয় !
ভিসা বানিজ্য এবং শ্রমিক সমস্যা নিয়ে বিগত দিনে অনেক ঘটনা ঘটে যাওয়ার পরেও এই করোনা ভাইরাসের মহামারির দুর্যোগের সময়ও আদম দালালরা থামেনি । প্রায় পাঁচ শতো ভিসা বেচাকেনার হিড়িক চলছে ।

আমাদের কথা ছিলো এবং এখনো বলছি, যেখানে টিকেট, মেডিক্যাল ও অন্যান্য খরচ সহ এক লক্ষ টাকার উপরে যায় না, সেখানে ৫/৭ লাখ টাকা খরচে ভিসায় লোক এনে নানা সমস্যার সৃষ্টি করে, দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট এবং মানুষের নানা ভোগান্তি আর সরকারের বদনাম ছাড়া আর আর কিছুই নয় । এযেনো এক নোংরা খেলায় মেতে উঠা । এর থেকে উত্তরণের পথ কি ?

আমরা মনে করি যিনি দায়িত্বে থাকেন, উনারই কর্তব্য এর সুষ্ঠ সমাধান দেয়ার । যদি উনি এর সমাধান দিতে ব্যর্থ হন, তাহলে এর দায়ভার উনার উপরেই বর্তাবে ।

অথচ সরকারের দায়িত্ব প্রাপ্ত লোকের সকল অর্থ ব্যয় ঐ সকল সাধারন মানুষের টেক্স থেকেই দেয়া হয় । উনারা সকল সুযোগ-সুবিধা সরকার থেকে গ্রহণ করে থাকেন, কিন্তু শ্রমিক বা সাধারণ জনগণের সমস্যা সমাধানের ব্যাপারে অপারগতা প্রকাশ বা নীরবতা পালন করবেন অথবা বলবেন এটা আমাদের কাজ নয়, আসলে এগুলো কতোটুকু যুক্তি সঙ্গত ?

মিশনের শ্রমিক কর্মীকর্তা আর কর্মচারিরা মিলে আদম দালালদের সাথে বসে গোপনে অফিসে বৈঠক করে পাঁচ লাখ টাকায় ভিসা বেচাকেনার সিদ্ধান্ত দেয়া এবং নেয়া, এরচেয়ে ঘৃণ্য কাজ আর কি হতে পারে ?

কার কাছে চাইবো এর বিচার ? কে করবে এর সমাধান ?
তাই উপরওয়ালাকেই বলি, হে আল্লাহ তুমি আমাদের হেদায়েত করো ।
আমাদের ক্ষমা করো ।

আর কতো বেচাকেনা হবে তোমার এ আদম সন্তানেরা ?
রক্ষা করো হে প্রভু – রক্ষা করো
ঐ দুশ্চরিত্রের শয়তানদের হাত থেকে এদেরকে রক্ষা করো ।

লিখেছেনঃ
রফিকুল ইসলাম ভুলু চাকলাদার
কুয়েত প্রবাসী
২৯/৫/২০২১ই

Related News

Add Comment