• মন্তব্য
Close

    কুয়েত বৌদ্ধ সমিতির উদ্যোগে শতাধিক পরিবারের মাঝে শীতবস্ত্র “কম্বল” বিতরণ

    পিছনে ফেলে সংকীর্ণতা
    দূর হোক দীনতা
    শীত হোক নিবারণ’
    এই আমাদের আয়োজন -এই শ্লোগান কে সামনে রেখে প্রতি বছরের মত বাংলাদেশী বৌদ্ধ সমিতি কুয়েতের উদ্যোগে শীতবস্ত্র “কম্বল”বিতরণ করা হয়েছে ১৬ই ডিসেম্বর ২০১৯ইং রোজ সোমবার খাগড়াছড়ি পাবর্ত্য জেলার অন্তগত মহালছড়ি মাষ্টার পাড়ায়, অসহায় হতদরিদ্র শীতার্ত ১১০ টি পরিবারের মাঝে।
    মহালছড়ি আর্যমিত্র বৌদ্ধ বিহারের বিহারধ্যক্ষ ও পার্বত্য জেলা বড়ুয়া বৌদ্ধ সংস্হার মহালছড়ি শাখার সহ সভাপতি বাবু বিদ্যুৎ বড়ুয়া,র সার্বিক সহযোগিতায় শীতবস্ত্র বিতরণের পূর্বে পঞ্চশীল গ্রহন ও সংক্ষিপ্ত আকারে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়, এতে বক্তব্য রাখেন- বাংলাদেশী বৌদ্ধ সমিতি কুয়েতের,প্রতিষ্টাতা সম্পাদক তাপস কান্তি বড়ুয়া,আজীবন সদস্য তমাল কান্তি বড়ুয়া, উপস্হিত ছিলেন সমিতির – প্রাক্তন প্রধান উপদেষ্টা সন্তোষ বড়ুয়া,আজীবন সদস্য মৃণাল বড়ুয়া,অর্থ সম্পাদক- লিটন বড়ুয়া, সহ সভাপতি – স্বপন বড়ুয়া, সদস্য তরুন সমাজকর্মী- রিটন বড়ুয়া,বীর মুক্তিযোদ্ধা ও আর্যমিত্র বৌদ্ধ বিহারের সভাপতি চাইহ্লা প্রু মারমা, মহালছড়ি বাজার কমিটির সভাপতি সুনীল দাশ,মহালছড়ি আসবাবপত্র কমিটির সভাপতি ও বৃহত্তর পার্বত্য জেলা বৌদ্ধ বড়ুয়া সংস্থার সহ সভাপতি বিদ্যুত বড়ুয়া, গ্রামীন ব্যাংক মহালছড়ি উপজেলা শাখার ম্যানেজার মৃণাল কান্তি বড়ুয়া,থলিপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক অংশুমান দেবনাথ,থলিপাড়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক বিটু মারমা,আর্যমিত্র বৌদ্ধ বিহার পরিচালনা পরিষদের নির্বাহী কমিটির সদস্য উৎপল তালুকদার সহ উল্লাসিত প্রমুখ গ্রামবাসী।
    এই সময় বাংলাদেশী বৌদ্ধ সমিতির কর্মকর্তা গন বলেন – মানবতার জন্য বাংলাদেশী বৌদ্ধ সমিতি কুয়েত প্রতিনিয়ত কাজ করে যাচ্ছে, মানুষ মানুষের জন্য – আমাদের এই শীত নিবারণের সহায়ক ” কম্বল দান সহযোগিতা যদি অসহায় শীতার্ত দের বিন্দু মাত্র উপকারে আসে তার চাইতে ভালো লাগা কিছু হতে পারে না। উপস্হিত সকল কে অহিংসা পরম ধর্ম মেনে চলার অনুরোধ জানিয়ে – বাংলাদেশী বৌদ্ধ সমিতি কুয়েতের সকল সদস্যদের জন্য আর্শীবাদ কামনা করেন।
    এইসময় উপস্হিত ১১০ টি অসহায় শীতবস্ত্র গ্রহনকারী পরিবার ও গ্রাম বাসী বাংলাদেশী বৌদ্ধ সমিতি কুয়েতের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে সমিতির শ্রীবৃদ্ধি কামনা করেন।
    পরিশেষে মহালছড়ি আসবাবপত্র কমিটির সভাপতি ও বৃহত্তর পার্বত্য জেলা বৌদ্ধ বড়ুয়া সংস্থার সহ সভাপতি বিদ্যুত বড়ুয়া,র সৌজন্য এক মধ্যেহৃ ভোজনের বিশেষ ব্যবস্থা করা হয়।